কঙ্কালের মুখে সোনার পাত, ১৫০ বছরের রহস্য উদ্ধার

0
0

১৮০০ বছরের পুরনো সোনার পাত নিয়ে চলছে বিস্তর গবেষণা। বেরিয়ে আসছে নানান তথ্য।

একটি সমাধিক্ষেত্রে কঙ্কালের মুখ থেকে এ সোনার পাতটি পাওয়া গিয়েছিল।

সেই ১৮৭২ সালের কথা। যুক্তরাজ্যের ইয়র্ক স্টেশনে পাওয়া গিয়েছিল এ কঙ্কালটি।

আর তখন থেকেই অর্থাৎ প্রায় ১৫০ বছর ধরে এই সোনার পাত নিয়ে গবেষণা চালিয়ে আসছেন প্রত্নতত্ত্ববিদ ও বিজ্ঞানীরা।

ইয়র্কশায়ার মিউজিয়ামের গবেষকদের বক্তব্য, যে কঙ্কালের মুখে এটি লাগিয়ে দেয়া হয়েছিল, সেটি তৃতীয় শতকের এক নারীর কঙ্কাল।

তারা আরও জানিয়েছেন, পূর্ব রোমের অভিজাত পরিবারের ব্যক্তিরা এ সোনার পাত ব্যবহার করতেন।

সম্প্রতি ১৮০০ বছরের পুরনো ওই নারী কঙ্কালটির ডিএনএ পরীক্ষা করা হয়েছে।

ডিএনএ পরীক্ষায় বেরিয়ে আসা তথ্য থেকে বিজ্ঞানীরা বলছেন, ১৮-৩০ বছর বয়সে এ নারী মারা গিয়েছিলেন। তিনি রোমের বাসিন্দা ছিলেন।

এবার প্রশ্ন জেগেছে- মৃত নারীর মুখে কেন সোনার পাত দিয়ে সমাধিস্থ করতেন তৎকালীন রোম অধিবাসীরা।

এ ব্যাপারে কিছু প্রত্নতাত্ত্বিক বলছেন, এ পাতটি ঔষধি হিসাবে ব্যবহৃত হতো।

তবে কিছু ঐতিহাসিক বলছেন, সেই সময় রোমে বিশ্বাস করা হতো, সোনার পাত মুখে দিয়ে দিলে মৃতদেহ থেকে আত্মা বেরিয়ে যেতে পারবে না।

কেননা সমাধিস্থ মৃতদেহে আবার আত্মা ফিরে আসে বলে তাদের বিশ্বাস ছিল।

প্রাচীন রোম, সিরিয়া, তুরস্ক, ক্রিমিয়াত- এমনকি ফ্রান্সেও এ ধরনের ‘গোল্ডেন মাউথ প্লেক’ পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছেন তারা।

ইয়র্কশায়ার মিউজিয়ামের প্রত্নতত্ত্ববিদ্যা বিভাগের সহকারী কিউরেটর অ্যাডাম পার্কার বলেন, ইয়র্ক স্টেশনে প্রাপ্ত ওই কঙ্কালটি নিয়ে আরও গবেষণা চলছে। বয়স জানা গেছে। স্টেবল আইসোটোপ অ্যানালাইসিসও করা হবে সোনার পাতটির। আরও রহস্য বেরিয়ে আসবে তখন।