সঠিক আঙুলে সঠিক রত্ন ধারণ করেছেন তো? নাহলে বিপদ

0
35

এএনএম নিউজ ডেস্ক: প্রত্যেকটি আঙুলের সঙ্গে শরীরের বিভিন্ন অঙ্গ প্রত্যঙ্গের মধ্যে যোগসূত্র আছে বিভিন্ন নার্ভের দ্বারা। তাই আঙুলে রত্ন ধারণ করলে সবচেয়ে বেশি কাজ দেয়।

কোন রত্ন কোন আঙুলে ধারণ করতে হয় এবং কেন? দেখে নেওয়া যাকঃ

তর্জনী- তর্জনীর সঙ্গে যোগসূত্র আছে রেসপিরেটরি সিস্টেম ও স্টম্যাকের।

মধ্যমা- মধ্যমার সঙ্গে যোগসূত্র আছে অন্ত্র বা ইনটেস্টাইন, মাইণ্ড বা ব্রেনের।

অনামিকা- অনামিকার সঙ্গে যোগসূত্র আছে হার্ট, কিডনি, স্টম্যাক, ডাইজেস্টিভ সিস্টেম, ব্লাড সার্কুলেশন, রিপ্রোডাক্টিভ অর্গান (একটি বিশেষ নার্ভ যার নাম ভেনা এমোরিস। এর সঙ্গে অনামিকা আঙুল ও হার্টের যোগসূত্র আছে তাই বিয়েতে এনগেজমেন্ট রিং বা ইটারনিটি রিং এই আঙুলেই পড়ানো হয়, এই নার্ভের পোশাকি নাম ভেইন অফ লাভ)।

কনিষ্ঠা- কনিষ্ঠার সঙ্গে যোগসূত্র রয়েছে প্রাইভেট পার্টস, লেগস, এবং শরীরের নিম্নাংশের।

আঙুলে রত্ন ধারণ সম্ভব না হলে তা বাহুতে বা গলায় ধারণ করা যায় তবে তার এফেক্ট খুব কম হয়।

কোন রত্ন কোন আঙুলেঃ-

তর্জনী- তর্জনীতে ধারণ করা উচিত ইয়োলো স্যাফায়ার, টোপাজ, মুনস্টোন, হোয়াইট পার্ল ইত্যাদি।

মধ্যমা- মধ্যমায় ধারণ করা উচিত নীলা, হীরা, গোমেদ ইত্যাদি।

অনামিকা- অনামিকায় ধারণ করা উচিত চুনী, লাল পলা, ক্যাটস আই ইত্যাদি।

কনিষ্ঠা- কনিষ্ঠায় ধারণ করা উচিত ক্যাটস আই, পাণ্ণা, হীরা ইত্যাদি।

আরোও পড়ুন:জেনে নিন জন্মতারিখ কী বলে আপনার সম্পর্কে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here