পুজোয় উপোস করবেন? তাহলে মেনে চলুন এই বিষয়গুলি

0
138

এএনএম নিউজ ডেস্কঃ বোধন থেকে শুরু করে কলাবউ স্নান, যজ্ঞ, কুমারী পুজো, সন্ধিপুজো, পুষ্পাঞ্জলি— পুজোর দিনগুলিতে (Durga Puja 2020) প্রতিক্ষেত্রেই নিয়ম পালন করা হয়।একদিকে, যেমন বাঙালির শ্রেষ্ঠ উৎসব দুর্গা পুজো, তেমনই দেশের উত্তরের মানুষও এই সময় নবরাত্রি (Navratri) পালন করেন। নবরাত্রি পালনের এই সময়ে নিরামিষ পদই বাড়িতে খাওয়া হয়। আবার কেউ কেউ ন’দিন ধরে নির্জলা উপোসও (Fasting) করেন। তবে, উপোসের পাশাপাশি পুজোর প্রস্তুতির ধকলে জেরে না খেয়ে শুয়ে পড়াই অভ্যাস হয়ে যায়। যার ফল টের পাওয়া যায় ঠিক পরের দিনই! পেট খারাপ, দুর্বলতা, মাথা যন্ত্রণা সমেত ঘুম ভাঙে। পর পর পুজোয় উপোস করেও সুস্থ থাকতে চাইলে তালিকায় থাকুক কিছু জরুরি জিনিস।

নির্জলা উপোস করলে – যদি নির্জলা উপোস (Fasting) করেন, তবে আলাদা বিষয়, কিন্তু নির্জলা উপোস শরীরের জন্য একেবারেই ভালো নয়। তাই চেষ্টা করুন তা এড়িয়ে চলতে। সারা দিনে অন্তত দু’ঘণ্টা পর পর অবশ্যই জল খাবেন।

বাইরে বেরোবেন না – উপোস করলে অবশ্যই রোদ এড়িয়ে চলুন। পুজোর কাজে খাটাখাটনি থাকলেও বাড়িতেই থাকুন। বাইরে বেরোবেন না। রোদের ধকলে মাথা ব্যথা হতে পারে।

যজ্ঞের সময় ধোঁয়া থেকে দূরে থাকুন – পুজোর সময়ে আগুনের কাছে থাকবেন না। যজ্ঞের সময়টা ধোঁয়া থেকে নিজেকে দূরে রাখুন। একেবারে খালি পেটে থাকলে এ সব ধোঁয়া শরীরে প্রবেশ করলে ক্লান্তি তো বাড়বেই, সঙ্গে ধোঁয়ার কার্বন মনোক্সাইড গ্যাস শরীরকে অসুস্থ করে তুলবে সহজেই।

এক গ্লাস গরম দুধ খেয়ে শুতে যান – উপোস (Fasting) করার আগের দিন রাতে এক গ্লাস গরম দুধ (milk) খেয়ে শুতে যান।

ঘুম অত্যন্ত জরুরি – উপোসের আগের দিন রাতে অবশ্যই ভালো করে ঘুমোবেন। রাতে ঘুম ভালো না হলে, পরদিন উপোস (Fasting) শেষে শরীরে অস্বস্তি দেখা দিতে পারে।

আরো পোস্ট-https://anmnews.in/?p=120074

https://anmnews.in/?p=120068